বিবৃতি

হাশেম ফুড কারখানায় আগুনে পুড়ে শ্রমিক হত্যার দায়ীদের গ্রেফতারের দাবি ইউডব্লিউডিএফ’র

0
115

নিজস্ব প্রতিনিধি ।। ইউনাইটেড ওয়ার্কার্স ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউডব্লিউডিএফ) এর সভাপতি সচিব চাকমা ও সহ-সাধারণ সম্পাদক প্রমোদ জ্যোতি চাকমা আজ শুক্রবার (৯ জুলাই) সংবাদ মাধ্যমে দেয়া এক যুক্ত বিবৃতিতে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের সজীব গ্রুপের প্রতিষ্ঠান হাশেম ফুড অ্যান্ড বেভারেজ লিমিটেডের কারখানায় অগ্নিকান্ডে অর্ধ শতাধিক শ্রমিকের মৃত্যু ও অর্ধ শতাধিক শ্রমিক আহত হওয়ার ঘটনায় গভীর শোক ও এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় বলেন, সরকার ব্যবসায়ী পুঁজিপতিদের স্বার্থ রক্ষা করতে গিয়ে শ্রমজীবি মানুষের জীবনের অধিকারকে কেড়ে নিয়েছে। কারখানাগুলোতে প্রয়োজনীয় নিরাপত্তার ব্যবস্থা না করে এক একটি মৃত্যুকূপে পরিণত করা হয়েছে। বাংলাদেশের কলকারখানাগুলোতে ভবন ধসে বা আগুনে পুড়ে হাজার হাজার শ্রমিকের মৃত্যু হয়ে আসলেও এর সঠিক তদন্ত ও বিচার কখনোই করা হয়নি। এর জন্য দায়ী কারখানার মালিকশ্রেণী, কারখানা পরিদর্শক কর্মকর্তাসহ  অপরাপর সংশ্লিষ্ট সরকারি কর্তৃপক্ষ কাউকেই গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়া হয়নি।

নেতৃদ্বয় আরো বলেন, এর আগে সাভারের রানা প্লাজা ভবন ধস, আশুলিয়ার তাজরিন ফ্যাশনসের ঘটনায় হাজারের অধিক শ্রমিকের হত্যাকান্ডের সাথে দায়ী কাউকেই দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়া হয়নি। আহত ও নিহত শ্রমিকদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ নিশ্চিত করা হয়নি। এতে অপরাধীরা বার বার পার পেয়ে গিয়ে আরো হাজারো শ্রমিকের মৃত্যুর কারণ হয়ে উঠছে। করোনা মহামারীর সময়ে সবকিছু বন্ধ থাকলেও শ্রমিকদের জীবনের নিরাপত্তাকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে কারখানা চালু রাখা হয়েছে।

বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় অবিলম্বে হাশেম ফুড অ্যান্ড বেভারেজ লিমিটেডে আগুনে পুড়ে শ্রমিক গণহত্যার সাথে দায়ী ব্যাক্তিদের দ্রæত গ্রেফতার ও বিচারের আওতায় আনা এবং নিহত শ্রমিকদের পরিবারকে এককালীন ক্ষতিপূরণ ও আহতদের চিকিৎসার ব্যয়ভার বহনসহ যথাযথ আর্থিক ক্ষতিপূরণের জোর দাবি জানিয়েছেন।


সিএইচটি নিউজে প্রকাশিত প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ,ভিডিও, কনটেন্ট ব্যবহার করতে হলে কপিরাইট আইন অনুসরণ করে ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.